শিরোনাম
Home >> দূনতি >> কালিয়াকৈরে মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে শিক্ষককে প্রাণনাশের হুমকী, বাড়িতে প্রবেশে বাঁধা

কালিয়াকৈরে মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে শিক্ষককে প্রাণনাশের হুমকী, বাড়িতে প্রবেশে বাঁধা

কালিয়াকৈর প্রতিনিধিঃ-মোঃ দেলোয়ার হোসেন
গাজীপুরের কালিযাকৈরে আসামীরা জামিনে মুক্তি পেয়ে থানায় দায়েরকৃত মামলা প্রত্যাহারের দাবীতে মামলার বাদী শিক্ষক ইমরান হোসেনকে প্রাণনাশের হুমকী দিয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এঘটনায় বাদী ইমরান কালিয়াকৈর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করেছেন। সাধারণ ডায়েরী করার কারণে আসামীরা আরো ক্ষুব্ধ হয়ে বাদী ও তার পরিবারের সদস্যদের বাড়িতে যাতায়াতে নানা ভাবে বাঁধার সৃষ্টি করছে।
জানা যায়, প্রতিষ্ঠানের নিয়ম অনুযায়ী উপজেলার আমবাগ এলাকার মাইলস্টোন স্কুল এন্ড কলেজের শিক্ষার্থীদের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে মোবাইল বা সেলফোন ব্যবহার বা বহনে নিশেধাজ্ঞা রয়েছে। এ নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে কোন কোন শিক্ষার্থী গোপনে মোবাইল বহন ও ব্যবহার করে। গোপনে এ সংবাদ পেয়ে প্রধান শিক্ষকের নির্দেশে ওই স্কুলের সহকারী ইমরান হোসেন শিক্ষার্থীদের ব্যাগ চেক করেন। এঘটনায় ক্ষুব্ধ হয়ে ওই স্কুলের জনৈক ছাত্রীর প্রেমিক উপজেলার কলাবাধা গ্রামের হোসেন মিয়ার বখাটে পুত্র রায়হান শিক্ষক ইমরান হোসেনকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ ও প্রাণে মেরে ফেলার হুমকী দেয়।
এঘটনায় অনুষ্ঠিত এক গ্রাম্য শালিশ থেকে বাড়ি ফেরার পথে বখাটে রায়হানের নেতৃত্বে ৭/৮ জনের একদল সন্ত্রাসী শিক্ষক ইমরান হোসেনের বোন লাভলী ও বোন জামাই আব্দুল কাদেরকে লোহার রড দিয়ে এলোপাতাড়ি পিটিয়ে মারাতœক আহত করে। খবর পেয়ে এলাকাবাসী তাদের ঘটনাস্থল থেকে মূমূর্ষাবস্থায় উদ্ধার করে প্রথমে শহীদ তাজউদ্দিন আহম্মেদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে। সেখানে তাদের অবস্থার আরো অবনতি হলে ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এঘটনায় শিক্ষক ইমরান হোসেন বাদী হয়ে কালিয়াকৈর থানায় ৮জনের নামে একটি মামলা দায়ের করেন। ওই মামলার আসামীরা আদালত থেকে জামিনে মুক্তি পেয়ে বাদী ইমরানকে মামলা প্রত্যাহারের দাবীতে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ ও নানা ভাবে প্রাণনাশের হুমকী দিচ্ছে। প্রাণনাশের হুমকীর ঘটনায় শিক্ষক ইমরান হোসেন বাদী হয়ে শুক্রবার কালিয়াকৈর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করেন। থানায় সাধারণ ডায়েরী করার পর আসামীরা আরো ক্ষুব্দ হয়ে বাদীসহ তার পরিবারের সদস্যদের নানা ভয়ভীতি হুমকী প্রদর্শন করছে। এমনকি বাদী ও তার পরিবারের সদস্যদের বাড়িতে যাতায়াতে নানা ভাবে বাধাঁর সৃষ্টি করছে বলে ইমরান হোসেন অভিযোগ করেন। এব্যপারে আলাপকালে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এসআই রনি কুমার সাহা সাধারণ ডায়েরির বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, তদন্ত সাপেক্ষে আসামীদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।
দেশের কন্ঠ২৪.কম/সজিব

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*